Breaking News

প্রবল বৃষ্টিতে পুকুর ভর্তি হয়ে উঠোনে জল জমে গিয়েছে,সেই স্রোতেই পুকুর থেকে চলে আসলো বড় কুমির, ব্যাপক ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন:ইন্টারনেটে আমরা প্রায়শই এমন অনেক ভিডিও ভাইরাল হতে দেখি যা হয়ত খালি চোখে কখনোই দেখা সম্ভব হয়না। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়া খুব দ্রুত ইন্টারনেটের ব্যবহার মানুষের মধ্যে ছড়িয়ে দিয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়া বলতে আমরা বুঝি ফেসবুক, টুইটার, হোয়াটসঅ্যাপ, ইনস্টাগ্রাম, টুইটার, মেসেঞ্জার প্রভৃতি জনপ্রিয় অ্যাপ্লিকেশনগুলিকে।

এই অ্যাপ্লিকেশনগুলিতে একাউন্ট তৈরি করার মাধ্যমে খুব সহজেই মানুষ সোশ্যাল মিডিয়ার সাথে যুক্ত হয়ে যান। এভাবে ক্রমাগত দিন প্রতিদিন এর ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েই চলেছে।আট থেকে আশি সকল বয়সের মানুষেরাই এখন নেট দুনিয়ায় বাসিন্দা।অনেকেই এই সোশ্যাল মিডিয়াকে নিজস্ব প্রতিভার বিকাশ ঘটানোর জন্য একটি প্লাটফর্ম হিসেবে ব্যবহার করেন।

এখানে বিভিন্ন দূরবর্তী অঞ্চলের ভিডিও থেকে শুরু করে নানান জিনিস আমরা দেখতে পারি।যেমন কিছুদিন আগেই ইন্টারনেটে একটি সত্তরোর্ধ্ব বয়স্ক মহিলার নাচের ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল।যেখানে বৃদ্ধাকে অসাধারণ জনপ্রিয় হিন্দি গানে দুর্দান্ত ভাবে নাচ করতে দেখা যাচ্ছিল। বৃদ্ধার নাচ দেখে একবারও বোঝা সম্ভবপর হয়নি যে তার বয়স 70 এর উপরে। বয়স যে শুধুমাত্র একটি সংখ্যা তিনি তা খুব সহজেই প্রমান করে দিয়েছেন।

সম্প্রতি আবারও নেটদুনিয়ায় একটি ভাইরাল ভিডিও শোরগোল ফেলে দিয়েছে। সেই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, বন্যার কারণে কোনোভাবে জলের স্রোতে বাড়ির উঠোনে চলে এসেছে 10 ফুট লম্বা একটি কুমির।প্রথমে জলের মধ্যে ছটফটানি দেখে বুঝতে না পারলেও কাছে এগিয়ে যাওয়ার পর মানুষ বুঝতে পারেন উঠোনে একটি কুমির চলে এসেছে। এর পরেই স্থানীয় অঞ্চলে আ-ত-ঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

যে ব্যক্তিটি ছটফটানি দেখে কুমিরের কাছাকাছি গিয়েছিলেন তিনি ভয়ে অত্যন্ত কুপোকাত হয়ে পড়েন। শিশু থেকে মহিলারা সকলেই এই ঘটনায় আ-ত-ঙ্কিত হয়ে পড়েন। জানা গিয়েছে ভিডিওটি গুজরাটের ভদোদারা এলাকার।জানা যায় পরে উদ্ধারকারীর দল এসে ওই কুমিরটিকে উদ্ধার করে নিকটবর্তী জলে ছেড়ে দেন।কিন্তু সেই সময় পর্যন্ত স্থানীয় অঞ্চলে আ-ত-ঙ্কের রেশ বজায় ছিল।

স্বাভাবিকভাবেই চোখের সামনে এত বড় এবং হিং-স্র প্রাণীকে দেখলে যে কোনো মানুষই ভ-য় পেতে বাধ্য হবেন। নেট দুনিয়ায় এই ভিডিওটি ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। অনেকেই যিনি ভিডিওটি বানিয়েছিলেন তার সাহসের প্রশংসা করেছেন।যেভাবে তিনি নিজের প্রাণের পরোয়া না করে দর্শকদের এই দৃশ্য দেখার সুযোগ করে দিয়েছেন তা নিঃসন্দেহে প্রশংসার যোগ্য।

About 24Ghanta News

Check Also

সিজারে বাচ্চা নেওয়ার অপর নাম নীরব মৃ-ত্যু (মিস করবেন না স্বামী স্ত্রী দুজনেই পড়ুন)!!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-সাধারণত একটি ভ্রূ-ণ ধীরে ধীরে মাতৃগর্ভে বড় হয়ে উঠতে সময় লাগে দশ মাস দশ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *