বাড়ির উঠোনে একসাথে বাসা বেঁ’ধেছিল তিন কো-ব’রা, মাটি খুঁ-ড়ে দেখতেই ঘটলো বি-প’ত্তি, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন:সোশ্যাল মিডিয়া মানেই নিত্য-নতুন ভাইরাল ভিডিওর সম্ভার। এইসব ভিডিও গুলো দেখে আমাদের সারাটা দিন খুব দ্রুত সময় কেটে যায়।কাজের ফাঁকে হোক বা অবসর সময়ে খুব সহজেই আমরা সোশ্যাল মিডিয়ায় সময় কাটাতে পারি।বর্তমানে শিশু থেকে বয়স্ক সকল বয়সের মানুষের মধ্যেই ইন্টারনেটের ব্যবহার ছড়িয়ে পড়েছে।

আধুনিক বিজ্ঞানের ব্যবহার বৃদ্ধি পাওয়ার ফলে স্মার্টফোনের সহজলভ্যতা আজ ঘরে ঘরে।তাই প্রতিটি মানুষ স্মার্ট ফোন ব্যবহার করে খুব সহজেই সোশ্যাল মিডিয়ার সাথে যুক্ত হতে পেরেছেন। এমতাবস্থায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম, গণমাধ্যম এর থেকেও বেশি শ-ক্তি-শা-লী হয়ে গিয়েছে বলে অনেকে মনে করছেন।

এই ইন্টারনেট দুনিয়াতে প্রতিদিন নানান ধরনের রকমারি ভিডিও এবং ফটো আমরা দেখতে পারি।যা কিছু সময় আমাদের মনকে আনন্দ দেয়, আবার কিছু সময় তা আমাদের মনকে ভা-রা-ক্রা-ন্ত করে তোলে। সম্প্রতি সা-প সংক্রান্ত একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল পরিমাণে ভাইরাল হয়েছে। এই ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে কোন একটি গ্রামের বাড়িতে ইটের গাথুনির ফাকে তিনটি বড় বড় কোব-রা সাপ নিজেদের বসবাসস্থল বানিয়েছে। শুধু মাত্র সাপ নয়, এর সাথে রয়েছে বেশ কয়েকটি ডিম।

এরপর এটি দেখামাত্রই গ্রামবাসীরা উদ্ধারকারীদের খবর দেন। উদ্ধারকারী যুবকেরা এসে অনেক কষ্টে ওই সাপগুলিকে উদ্ধার করেন এবং একটি ব্যাগের মধ্যে রেখে দেন। প্রথমে অনেকেই ভেবেছিলেন তারা হয়তো সাপগুলিকে মেরে ফেলবেন, কিন্তু জানা যায় সেগুলোকে উদ্ধার করে জঙ্গলে ছেড়ে দেওয়া হবে। উদ্ধার করতে আসা যুবকেরা আরো জানান এই সময়টি কোবরার ডিম পাড়ার সময়। তাই হয়তো গর্তে-র মত জায়গা পেয়ে তারা আশ্রয় বানিয়েছিল। শুধু মাত্র সাপ নয়, তাদের ডিমগুলিকেও একসাথে ছেড়ে দেওয়া হয়।

প্রসঙ্গত এই ভাইরাল ভিডিওটি ওড়িশা রাজ্যের বসন্তিয়া জেলার কেওনঝড় এলাকার।এই ধরনের কো-ব-রা সাপ সাধারণত এই অঞ্চলে খুব দেখতে পাওয়া যায়। দক্ষিণ এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় এই সাপের প্রাধান্য প্রচুর বেশি। চীন, ভারত, ভিয়েতনাম, কম্বোডিয়া, মালয়েশিয়া, বাংলাদেশ, ভুটান, মায়ানমার, নেপাল,থাইল্যান্ড প্রভৃতি জায়গাতেই প্রধানত কোবরার এই প্রজাতি জন্ম নেয়।

কোবরার এই প্রজাতি টি সাধারণত খুব ভ-য়া-ব-হ হয়।আচমকাই তাদেরকে ব্যতিব্যস্ত করে তুললে কোন প্রাণীকে ছো-ব-ল মারতেও দ্বিধা বোধ করে না তারা। কোবরার -দংশ-নে-র ফলে সোজাসুজি যে কোন প্রাণীর স্নায়ুতন্ত্র পক্ষাঘাতগ্রস্ত হয়ে আ-ক্রা-ন্ত হয়। যার ফলে যে কোনো মানুষের বা প্রানীর মুহূর্তের মধ্যেই মৃ-ত্যু ঘটতে পারে।তাই অবশ্যই আমাদের এইসব সাপের থেকে সতর্ক থাকা উচিত কিন্তু তাবলে কখনই মে-রে ফেলা উচিত নয়।মির্জা মহম্মদ আরিফ নামে একটি জনপ্রিয় ইউটিউব চ্যানেলের তরফ থেকে এই ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button