বিবাহবার্ষিকীতে রাজকে আ’দরে ভরিয়ে দিলেন স্ত্রী শুভশ্রী, তৃতীয় বিবাহ বার্ষিকী আজ এই তারকা দম্পতির,তুমুল ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-বিয়ের পর থেকেই টলিউডের শিরোনামে রয়েছে রাজ চক্রবর্তী এবং শুভশ্রী গাঙ্গুলীর জুটি। এই তারকা দম্পতি যাই করুক না কেন তা সংবাদের লাইমলাইটে চলে আসে। এরপর কিছুদিন আগেই জন্ম নিয়েছে তাদের একমাত্র সন্তান ইউভান চক্রবর্তী।ইউভানকে এককথায় টলিউডের তৈমুর বলা যায়। সোশ্যাল মিডিয়ার সেনসেশন ইউভান।

মাত্র সাত মাস বয়স হলেও এরই মধ্যে তার নামে সোশ্যাল মিডিয়া পেজ থেকে শুরু করে ফ্যান ক্লাব সব কিছুই রয়েছে। মুহূর্তের মধ্যেই এই শিশুটির যেকোনো ছবি ইন্টারনেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়ে ওঠে।“রাজশ্রী” জুটির একমাত্র পুত্র বলে কথা। যদিও আপাতত কিছুদিন ধরে মনমরা ছিলেন এই রাজ—পুত্র।কারণ শুভশ্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় এত ছোট বয়সেই মাকে ছেড়ে থাকতে হচ্ছিল তাকে। যদিও বাবা রাজ চক্রবর্তী এবং ঠাকুমা তার যত্নে কোনরকম ত্রুটি রাখেননি।

তবে আপাতত সুস্থ হয়ে উঠেছেন শুভশ্রী।দিন দুয়েক আগেই মাতৃ দিবস উপলক্ষে ছেলে এবং স্বামীকে নিয়ে বড় দিদির বাড়িতে উপস্থিত হয়েছিলেন অভিনেত্রী। সেখানেই জমিয়ে সম্পূর্ণ বাঙালি সাজে মাতৃ দিবস এবং রবীন্দ্রজয়ন্তী পালন করতে দেখা যায় তাকে। এরই মধ্যে গতকাল ছিল রাজ—শুভশ্রী জুটির তৃতীয় বিবাহ বার্ষিকী।এই উপলক্ষে নিজের স্বামীকে শুভেচ্ছা জানাতে ভোলেননি অভিনেত্রী।

রাজ চক্রবর্তীকে পেয়ে তার জীবন ধন্য হয়ে গেছে এমন টাই জানিয়েছেন নায়িকা।লিখেছেন,”রাজকে পেয়ে আমার জীবন ধন্য হয়ে গিয়েছে।আপনারা আশীর্বাদ করবেন আমরা দুজনে যেন সারাটা জীবন এভাবেই থাকতে পারি”। ঠিক একইরকম সুর শোনা গিয়েছে স্বামী রাজের গলাতেও।

ইনস্টাগ্রামে একটি পোস্টে দুজনের একটি ছবি শেয়ার করে রাজ লিখেছেন,”শুভশ্রী আমার জীবনের সব থেকে ভালো বন্ধু। আমার অনেক ভালোবাসা শুভশ্রীর জন্য। শুভশ্রী আমাকে ইউভানকে উপহার দিয়েছে; যার মুখ দেখলে আমি খুব সহজেই পৃথিবীর সমস্ত দুঃখ কষ্ট এক নিমিষেই ভুলে যাই”।

শুধুমাত্র ক্যাপশনে আদরের বার্তা নয় একে অপরের সাথে বেশ কিছু সুন্দর এবং ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের ছবি এবং ভিডিও শেয়ার করেছেন এই তারকা দম্পতি। যা মুহূর্তের মধ্যেই ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়াতে এই তারকা জুটি কে ভক্তরা বেশ ভালোবাসা দিয়েছেন তা বোঝাই যাচ্ছে।

সারাটা দিন তারা তৃতীয় বিবাহ বার্ষিকী উপলক্ষে সকলের থেকে শুভেচ্ছা পেয়েছিলেন।তবে করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে একেবারেই ঘরোয়াভাবে বিবাহ বার্ষিকী উদযাপন করেছেন তারা। বিশেষ কোনো জাঁকজমক না থাকলেও এই আনন্দে অত্যন্ত খুশি ছড়িয়েছিল।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button