কয় মাস বিনামূল্যে রেশন পাবেন দেশবাসী? কি জানালো কেন্দ্রীয় সরকার? জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন:-লকডাউন এর সময় আমরা দেখেছিলাম প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদী অর্থাৎ কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে গরিব কল্যাণ যোজনার আওতায় দেশজুড়ে প্রতিটি মানুষকে বিনা মূল্যে রেশন পরিষেবা প্রদান করা হয়েছিল ।কিন্তু পরিস্থিতি এখন ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হচ্ছে ।

খোলাবাজারে খাদ্যশস্য বিক্রি হচ্ছে তাই এই গরীব কন্যান যোজনার আওতায় বিনামূল্যে রেশন দেওয়ার প্রক্রিয়া বন্ধ করে দিতে চাইছে কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু বিভিন্ন রাজনৈতিক মহল থেকে বা পারিবারিক মহল থেকে একাধিক সমালোচনার সৃষ্টি হওয়ার জন্য সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসতে বাধ্য হল কেন্দ্রীয় সরকার। বরং বাড়লো মেয়াদ।

রাজ্যের খাদ্যমন্ত্রী রথীন রায় জানিয়েছিলেন যে কেন্দ্রীয় সরকার এই পরিষেবা বন্ধ করে দিল রাজ্য সরকার কিন্তু তার পরিষেবা আগামী দিনেও দিয়ে যাবে।তিনি বলেছিলেন, “বিনামূল্যে রেশনের জন্য রাজ্য সরকারের বরাদ্দ রয়েছে তার থেকে অতিরিক্ত কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে যা দেওয়া হচ্ছিল সেটা ওরা বন্ধ করে দেওয়ার আভাস দিচ্ছে।

গরিব কল্যাণ এর নামে কিছুদিনের জন্য মানুষকে পরিষেবা দিয়ে হঠাৎ করে বন্ধ করে দেওয়ার কি কারন সেটা আমরা জানি না, তবে আমাদের রাজ্য এই প্রকল্প জারি রাখবে।”এব্যাপারে তৃণমূলের নেতা সৌগত রায় সরাসরি প্রধানমন্ত্রীকে টুইটারে একটি টুইট করেন। তবে ঐদিন মন্ত্রিসভার অধিবেশনে এমনটা সিদ্ধান্ত নিতে শোনা যায় যে বিনামূল্যের রেশন এর সময়সীমা আরও কিছুটা বাড়ানো হলো।

সূত্র অনুসারে এমনটা জানা যাচ্ছে এই রেশন পরিষেবার মেয়াদ ছিল আগামী 30 নভেম্বর পর্যন্ত কিন্তু অর্থনৈতিক অবস্থার দিকে তাকিয়ে এবং সাধারন মানুষের পরিবারের কথা ভেবে মন্ত্রিসভায় ঐদিন এর মেয়াদ বৃদ্ধির কথা জানানো হয়েছে এবং গতকাল কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে 1 লা ডিসেম্বর থেকে 2022 সালের মার্চ মাস পর্যন্ত বিনামূল্যে এই রেশন প্রদান করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী নিজে এই বিষয়টি ট্যুইট করে জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ অন্ন যোজনার আওতায় 80 কোটি ভারতবাসীর জন্য মাথাপিছু 5 কেজি করে চাল অথবা কম বিনামূল্যে দেওয়ার বিষয়টি ঘোষণা করেছিল কেন্দ্রীয় সরকার।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button