দারুন সুখবর! প্রতি লিটার পেট্রোলে বাঁচবে 20 টাকা করে! নতুন ঘোষণা কেন্দ্রের! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- আপনিও কি দেশে বাকি সাধারণ নাগরিককে মতন পেট্রোল এবং ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধি যাঁতাকলে পড়ে রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছেন ? তা হলে হতে পারে এই প্রতিবেদনটি আপনার জীবনের সুখবর নিয়ে আসছে ।কারণ সম্প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে যে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হতে চলেছে তা হাসি ফোটাবে আপামর গোটা দেশবাসীর মুখে। সে ব্যাপারে সন্দেহের কোনো অবকাশ নেই ।কারণ এবার জ্বালানির দাম কমবে প্রায় ২০-৩০ টাকা। জেনে নিন কিভাবে

এবার থেকে পেট্রোল এর পরিবর্তে ইথানল ব্যবহারের দিকে নজর দিচ্ছে সরকার প্রতিটি গাড়িতে পেট্রোল এর পাশাপাশি থানায় যেতে ব্যবহার করা যেতে পারে সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত বা পরিকল্পনা নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার ।ইথানল পেট্রোলের চেয়ে ভালো জ্বালানি, স্বল্প ব্যয় স্বাপেক্ষ, দূষণমুক্ত ও স্বদেশী। এই জ্বালানি ব্যাবহার করলে দেশের অর্থনীতি অনেকটা এগিয়ে নিয়ে যাওয়া যাবে।

বর্তমানে প্রতি লিটার পেট্রলে ৮.৫ শতাংশ ইথানল মেশানোর অনুমতি রয়েছে। ২০১৪ সালে এই পরিমাণ ছিল ১.৫ শতাংশ। আখ ও ভুট্টা গাছ ইথানল তৈরিতে ব্যবহৃত হয়। যেহেতু এটি পরিবেশ থেকে প্রাপ্ত তাই তাই একে পরিবেশ বান্ধব হিসাবে মনে করা হয়। কেন্দ্রীয় পরিবহনমন্ত্রী নীতিন গড়করি জানিয়েছেন যে প্রতিটি গাড়িতে আগামী ১০ দিনের মধ্যে ফ্লেক্সফিল্ড যাতে ব্যবহার করা যেতে পারে তার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

পেট্রোল ইঞ্জিনের পাশাপাশি জাতীয় ব্যবহার করা যেতে পারে সেই বিষয়ে নজর দিচ্ছে তারা । বিদেশে বিভিন্ন গাড়িতে এই ধরনের ডবল ইঞ্জিনের ব্যবস্থা থেকে থাকে । যেহেতু ইথানল পেট্রোল এর তুলনায় অনেক সহজলভ্য এর দাম ভারতীয় বাজারে কম হবে । প্রায় ৪০ শতাংশ কমে যাবে পেট্রোলের দাম এবং প্রতি লিটার এটি পাওয়া যেতে পারে ৬০ থেকে ৬৫ টাকা দরে। যার ফলে সাধারণ মানুষের সুবিধা হবে অনেকখানি।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নীতিন গড়কড়ি জানিয়েছেন, গাড়িতে পেট্রল ইঞ্জিনের পাশাপাশি ফ্লেক্স-ফুয়েল ইঞ্জিনও থাকবে যার ফলে ১০০ শতাংশ ইথানল ব্যবহার করেও গাড়ি চালানো যাবে। ব্রাজিল, কানাডা এবং আমেরিকার অটোমোবাইল সংস্থাগুলি ইতিমধ্যেই ফ্লেক্স-ফুয়েল ইঞ্জিন তৈরি করছে যার ফলে গ্রাহকেরা ১০০ শতাংশ পেট্রল বা ১০০ শতাংশ বায়ো-ইথানল ব্যবহার করে গাড়ি চালাতে পারবেন। পারেন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button