ঠিক কবে ঢুকবে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের টাকা? স্পষ্ট জানিয়ে দিল নবান্ন! রইল বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- নির্বাচনে জয়লাভের পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর সবথেকে সাড়াজাগানো প্রকল্প হল লক্ষীর ভান্ডার। বাংলার মহিলাদের জন্য মুখ্যমন্ত্রী প্রকল্প খুব সহজেই জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে 500 থেকে হাজার টাকা পর্যন্ত পেতে পারেন মহিলারা। তবে এর জন্য নির্দিষ্ট কিছু নিয়ম রয়েছে। ইতিমধ্যেই চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাস থেকে এই প্রকল্পে আবেদন করা মহিলাদের টাকা দেওয়া শুরু হয়ে গিয়েছে।

তবে অনেকের মনেই প্রশ্ন রয়ে গিয়েছে যে যাদের ফোনে এখনো পর্যন্ত এসএমএস এসে পৌঁছয়নি তারা টাকা পাবেন কিনা! আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা এই সমস্যার সমাধান করতে চলেছি। প্রসঙ্গত লক্ষীর ভান্ডারে আবেদন করার পরেই নির্দিষ্ট ফোন নাম্বারে অ্যাপ্লিকেশন আইডি এবং একটি ভেরিফিকেশন নাম্বার পাঠানো হয়।ইতিমধ্যেই যাদের ফোনে এই নাম্বার এসেছে তারা অনেকেই সেপ্টেম্বর মাসের শেষদিকে টাকা পেতে চলেছেন।

তবে যাদের ফোনে এখনো পর্যন্ত এই মেসেজ এসে পৌঁছায়নি তারা পরবর্তী তালিকায় টাকা পাবেন। অর্থাৎ প্রথম ধাপে যাদের নাম এই প্রকল্পের জন্য নির্ধারণ করা হয়েছিল তারাই একমাত্র সেপ্টেম্বর মাসের শেষের দিকে নির্দিষ্ট ব্যাংক একাউন্টে টাকা পাবেন। প্রসঙ্গত জানিয়ে রাখি, লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পে যদি কোন কারনে ফর্ম ফিলাপের সময় কোন ভুল থেকে থাকে তাহলেও চিন্তার প্রয়োজন নেই।

কারণ আবেদন গ্রহণ করার সময় মহিলাদের প্রয়োজনীয় সমস্ত রকমের ডকুমেন্ট ভেরিফিকেশন করে নেওয়া হয়। তাই আবেদন করার সময় কোন ভুল থাকলে তা ঠিক করে দেওয়া হবে। লক্ষীর ভান্ডারে আবেদন করার জন্য আধার কার্ড, ব্যাংকের পাসবুক প্রয়োজন হচ্ছে।এবং এই ডকুমেন্টগুলো উপযুক্তভাবে যাচাই করার পরই মান্যতা দেওয়া হচ্ছে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button