জানেন প্রতিদিন গরম জলের সঙ্গে লেবু মিশিয়ে খেলে কি হয়? জানলে রীতিমতো অবাক হবেন

নিজস্ব প্রতিবেদন:-ছোটখাটো যে ধরনের শারীরিক সমস্যাগুলি প্রতিনিয়ত আমাদের শরীরের মধ্যে দেখা যায় সে-গু-লি নিরাময়ের জন্য আমরা হয়তো সবসময় চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে থাকি বা ওষুধ সেবন করে থাকি। কিন্তু একথা অস্বীকার করার কোন উপায় নেই যে বাড়িতে কিছু টোটকা থেকেই থাকে যেগুলোর মাধ্যমে কিন্তু আমরা সহজেই সেই সমস্ত সমস্যা গু-লি থেকে মুক্তি পেতে পারি। গ্যাস বদহজম অম্বল এ-গু-লি নিত্যদিনের ঘটনা।

তার পাশাপাশি হঠাৎ করে ওজন বেড়ে যাওয়া সমস্যায় ভুগতে থাকে বহু মানুষ ।এই ধরনের সমস্যাগুলি থেকে মুক্তি পাবার ঘরোয়া টোটকা হলো লেবু। একদম ঠিক শুনেছেন ।আজকের প্রতিবেদন মাধ্যমে আপনাদেরকে জানাবো যে সকাল বেলায় খালি পেটে গরম জলের সাথে যদি লেবু খাওয়া হয় তাহলে কি কি উপকার পাওয়া যায়।

উপকার:-বয়স ধরে রাখতে সাহায্য করে:-সকাল বেলায় যদি খালি পেটে গরম জলের সাথে সামান্য পরিমাণ লেবু মিশিয়ে খান তাহলে সেটি আপনাকে বয়সের বলিরেখা থেকে মুক্তি দেবে যেহেতু লেবুর মধ্যে ভিটামিন সি রয়েছে তাই এটি বলিরেখা দূর করতে সাহায্য করে। পাশাপাশি বয়সের চাপ শরীরের মধ্যে পড়তে দেয় না। লেবুর মধ্যে রয়েছে কোলাজেন যা ত্বকের সুরক্ষা করে।

লিভার কে সুস্থ রাখে:– লিভার আপনার শরীরে ফিল্টার হিসেবে কাজ করে। লেবুর সাইট্রাস ফ্লাভোনইডস‌ লিভার থেকে বর্জ্য ফেলে দিতে ও লিভারের ফ্যাট কমাতে সহায্য করে। তাই লিভারকে সুস্থ রাখার জন্য লেবু জল খুব উপকারী।
ক্লান্তি দূর করে:-গরমের দিনে প্রচন্ড পরিমাণে ঘাম হয় আমাদের শরীরে। যার ফলে রক্তে সুগারের মাত্রা অনেকখানি কমে যায় এর ফলে আমরা সহজেই ক্লান্ত হয়ে পড়ি । এই ক্লান্ত ভাব দূর করার জন্য অতি অবশ্যই গরম জলে সামান্য পরিমাণ লেবু মিশিয়ে খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা।

মুখের দুর্গন্ধ দূর করে:- লেবুতে যে সাইট্রাস আছে তা সহজেই মুখের ভেতর ব্যাকটেরিয়া হওয়ার আশঙ্কা রোধ করে। আর তাই মুখে দুর্গন্ধ হয় না। তবে লেবুর এসিড দাঁতে অতিরিক্ত পরিমাণ পড়লে দাঁতের এনামেল নষ্ট হয়ে যেতে পারে। তাই মাঝে মাঝে স্ট্র দিয়ে লেবু জল পান করতে পারেন।
বিপাকে সাহায্য করে:-ঠান্ডা জল তুলনামূলকভাবে বিপাকে সাহায্য করে বেশি মাত্রায়।পাশাপাশি লেবুর খোসা রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে । তাই ঠান্ডা লেবুর জলে কিছুটা লেবুর খোসা কুচি করে মিশিয়ে খেয়ে নিন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button