টাকা পাননি লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের? এক্ষুনি জমা করুন এই কাগজটি! সঙ্গে সঙ্গে ঢুকবে টাকা! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় শুরু করা হয়েছিল লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পে কাজ কর্ম ।এই লক্ষী ভান্ডার প্রকল্প নিয়ে একাধিক সমস্যা দেখা গিয়েছিল এর আগে। বিশেষ করে যে সমস্ত বিষয়গুলি নিয়ে বারবার প্রশ্ন সামনের সারিতে উঠে আসছিল সেগুলি হল নথিপত্র এমন বহু মহিলা রয়েছে যাদের এখনও পর্যন্ত স্বাস্থ্য সাথী কার্ড হয়নি বা যাদের জাতিগত শংসাপত্র এখনো পর্যন্ত তৈরি হয়নি। তাহলে কি তারা লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের জন্য আবেদন করতে পারবেন না ? এই সমস্ত নিয়মকে সরলীকরণ করল রাজ্য সরকার।

রাজ্য সরকারের তরফ থেকে গত শুক্রবার একটি অফিশিয়াল নোটিফিকেশন জারি করা হয়েছে। যার মাধ্যমে তারা জানাচ্ছেন যে এবার থেকে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড আধার কার্ড ভোটার কার্ড রেশন কার্ড কোন কিছুই লাগবেনা লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের আবেদন করার জন্য ।শুধুমাত্র এই নথিপত্র টি লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে আপলোড করে দিলেই আপনি লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের টাকা পেতে পারেন।

এবার হয়তো আপনাদের মনে প্রশ্ন আছে যে কি এই গুরুত্বপূর্ণ নথি পত্র টি ? জেনে নিন বিস্তারিত এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে। এই গুরুত্বপূর্ণ নথি পত্র টি হল এনকোয়ারি ডিটেইলস অর্থাৎ আপনার কাছে যদি আধার কার্ড স্বাস্থ্য সাথী কার্ড ভোটার কার্ড না থেকে থাকে তাহলে কিসের ভিত্তিতে পশ্চিমবঙ্গ সরকার আপনাকে টাকা দেবে ? তার জন্য একটা ফিল্ড লেভেলে এনকোয়ারি করা হয়। এই এনকোয়ারি সার্টিফিকেটটা আপনাকে অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে আপলোড করতে হবে।

এর জন্য প্রথমে আপনাকে লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে। তারপরে ফ্যাকাল্টি অ্যাপ্লিকেশন নামক একটি অপশন দেখতে পাবেন ।সেখানে ক্লিক করার পর এডিট উইথআউট ডকুমেন্টস নামক অপশনটিতে ক্লিক করতে হবে। সেই অপশনে ক্লিক করার পর একদম নিচের দিকে এনকোয়ারি সার্টিফিকেট আপলোড করার একটি জায়গা পাবেন ।সেখানে এনকোয়ারি অফিসারের নাম রেজিস্ট্রেশন নাম্বার সহ একাধিক তথ্য জারি করা থাকবে । এবং এই নথিপত্র টি আপলোড করার নেই আপনি লক্ষী ভান্ডার প্রকল্পের জন্য টাকা পেতে পারেন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button